নবম-দশম শ্রেণির গণিত: ১ম অধ্যায় বাস্তব সংখ্যা এর সকল সংক্ষিপ্ত প্রশ্নসমূহ

যৌগিক সংখ্যা কাকে বলে
বাস্তব সংখ্যা কাকে বলে

১. বাস্তব সংখ্যা কাকে বলে?

= সকল মূলত এবং অমূলদ সংখ্যাকে বাস্তব সংখ্যা বলে।

২. স্বাভাবিক সংখ্যা কাকে বলে?

= শূন্য অপেক্ষা বড় যেকোনো পূর্ণ সংখ্যাকে স্বাভাবিক সংখ্যা বলে।

৩. মৌলিক সংখ্যা কাকে বলে?

= যে সংখ্যাকে এক ও ঐ সংখ্যা ছাড়া অন্য কোন সংখ্যা দ্বারা ভাগ করা যায় না তাকে মৌলিক সংখ্যা বলে।

৪. যৌগিক সংখ্যা কাকে বলে?

= যে সংখ্যাকে এক ও ঐ সংখ্যা ছাড়া অন্য এক বা একাধিক সংখ্যা দ্বারা ভাগ করা যায় তাকে যৌগিক সংখ্যা বলে।

৫. সহমৌলিক সংখ্যা কাকে বলে?

= 2 টি স্বাভাবিক সংখ্যার গসাগু 1 হলে এদেরকে পরস্পরের সহমৌলিক সংখ্যা বলে।

৬. পূর্ণ সংখ্যা কাকে বলে?

= শূন্য সহ সকল ধনাত্মক ও ঋণাত্মক অখণ্ড সংখ্যাকে পূর্ণ সংখ্যা বলে।

৭. ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= দুইটি পূর্ণ সংখ্যাকে অনুপাত বা ভাগ করলে যে রাশি পাওয়া যায় তাকে ভগ্নাংশ বলে।

৮. মূলদ সংখ্যা কাকে বলে?

= যেসব সংখ্যাকে ভগ্নাংশ আকারে প্রকাশ করা যায় তাকে মূলদ সংখ্যা বলে।

৯. অমূলদ সংখ্যা কাকে বলে?

= যেসব সংখ্যাকে ভগ্নাংশে আকারে প্রকাশ করা যায় না তাকে অমূলদ সংখ্যা বলে।

১০. দশমিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= মূলদ ও অমূলদ সংখ্যাকে দশমিক দিয়ে প্রকাশ করা হলে তাকে দশমিক ভগ্নাংশ বলে।

১১. সসীম দশমিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= দশমিক বিন্দুর পর অংক সংখ্যা সসীম হলে এদেরকে সসীম দশমিক ভগ্নাংশ বলে।

১২. অসীম দশমিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= দশমিক বিন্দুর পর অংক সংখ্যা অসীম হলে এদেরকে অসীম দশমিক ভগ্নাংশ বলে।

১৩. আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= যে সকল দশমিক ভগ্নাংশে দশমিক বিন্দুর দানে একটি অংক বরাবর আসে বা একাধিক অংক পর্যায়ক্রমে বরাবর আসে , এদের আবৃত দশমিক ভগ্নাংশ বলা হয়।

১৪. অনাবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ নয় এমন সংখ্যাকে অনাবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ বলে।

১৫. বিশুদ্ধ পৌনঃপুনিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= দশমিক ভগ্নাংশে দশমিক বিন্দুর পর আবৃত্তাংশ ছাড়া অন্য কোন অংক না থাকলে একে বিশুদ্ধ পৌনঃপুনিক ভগ্নাংশ বলা হয়।

১৬. মিশ্র পৌনঃপুনিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= পৌনঃপুনিক ভগ্নাংশে দশমিক বিন্দুর পর আবৃত্তাংশ ছাড়া এক বা একাধিক অংক থাকলে একে মিশ্র পৌনঃপুনিক ভগ্নাংশ বলা হয়।

১৭. সদৃশ আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= দুই বা ততোধিক আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশের অনাবৃত্ত ও আবৃত্ত উভয় অংশের অংক সংখ্যা সমান হলে এদেরকে সদৃশ আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ বলে।

১৮. অসদৃশ আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= দুই বা ততোধিক আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশের অনাবৃত্ত ও আবৃত্ত উভয় অংশের অংক সংখ্যা সমান না হলে এদেরকে অসদৃশ আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ বলে।

১৯. অসীম আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= অসীম দশমিক ভগ্নাংশ গুলোর মধ্যে দশমিক বিন্দুর পর কিছু অংকের পুনরাবৃত্তি হলে তাদেরকে অসীম আবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ বলে।

২০. অসীম অনাবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ কাকে বলে?

= অসীম দশমিক ভগ্নাংশ গুলোর মধ্যে দশমিক বিন্দুর পর কিছু অংকের পুনরাবৃত্তি না হলে এদের অসীম অনাবৃত্ত দশমিক ভগ্নাংশ বলে।

২১. ধনাত্মক সংখ্যা কাকে বলে?

= শূন্য থেকে বড় সকল বাস্তব সংখ্যাকে ধনাত্মক সংখ্যা বলে।

২২. ঋণাত্মক সংখ্যা কাকে বলে?

= শূন্য থেকে ছোট সকল বাস্তব সংখ্যাকে ঋণাত্মক সংখ্যা বলা হয়।

২৩. অঋণাত্মক সংখ্যা কাকে বলে?

= শূন্য সহ সকল ধনাত্মক সংখ্যাকে অঋণাত্মক সংখ্যা বলে।

1 Comments